Thursday, January 3, 2019

টেলিফোন লাইন হ্যাকিং + মোবাইল মাইক্রো এন্টেনা + নব্য ফ্রিল্যান্সাদের জন্য ছোট্ট একটি সুসংবাদ

বেশ অনেকদিন পর লিখতে শুইলাম; কেননা প্রায় সময়ই মোবাইলে টাইপ করার সময় শুয়েই থাকি….আলাদা একটা ফিলিংস কাজ করে😁😁😁
আমাদের অনেকেই অন্যের অযাচিত ফোন লাইন ট্যাপ করা বা ফোন কল হ্যাক করা বিষয়টির সাথে পূর্বপরিচিত, বিশেষত টেলিফোন হ্যাক করে কথোপকথন ফাঁস করে ব্রেকিং নিউজ বানানোর মতোন বিষয়টি কে না জানে??!!

আজ আমরা শিখবো কিভাবে একটি ইলেক্ট্রনিকস সার্কিটের সাহায্যে অন্যের টেলিফোন লাইন হ্যাক করা যায়, চলুন শুরু করা যাক…….
কম্পোনেন্ট:

Transistor→ BC639

Resistors→ 47k ohm, 2M2 ohm, 22k ohm, 470 ohm

Capacitors (ceramic)→ 10nf, 10pf, 3-47pf (veritable capacitor)

Tank Coil→ 3mm copper insulated wire, 6 turnss
কার্যপ্রণালী:

এবার নিচের সার্কিট ডায়াগ্রামের মতো কম্পোনেন্ট’গুলো সংযুক্ত করুন:



একটা বিষয় খেয়াল করুন এখানে সকল ক্যাপাসিটার সিরামিক; এদের কোন স্পেসিফিক ইলেক্ট্রো-পোল নেই তাই যেকোন একদিকে সংযুক্ত করলেই চলবে। অনেক সময় দোকানদার n-p-n ট্রানজিস্টার বিবেচনায় কমন BC547 কিংবা BC548 ট্রানজিস্টার দিতে পারে, কিন্তু এই সার্কিটের জন্য আমাদের স্পেসিফিক BC639 মানের ট্রানজিস্টার প্রয়োজন হবে। ট্যাংক কয়েল তৈরীর সময় কয়েলের দুটি প্রান্ত যেন একই সমান্তরালে থাকে সেটি খেয়াল রাখবেন। আবার ভ্যারিয়েবল ক্যাপাসিটর ট্রিমার বা টিউমার নামেই অধিক প্রচলিত।
উপরের সার্কিট তৈরীর পর আমাদের নিকট চারটি আউট লাইন-ওয়্যার থাকবে; এখন ডায়াগ্রাম অনুযায়ী আপনি যেই টেলিফোন লাইন হ্যাক করতে চান তার তারের সাথে =x= এমনভাবে যুক্ত করবেন; এখানে = হলো টেলিফোন লাইনের তার এবং x হলো আপনার হ্যাকিং গ্যাজেট তথা সার্কিট যার প্রতিটি প্রতিটি প্রান্ত সার্কিটের আউট লাইন নির্দেশ করে।
সচিত্র আকারে ডিভাইসটি দেখতে অনেকটা এমই হবে:

কিভাবে হ্যাক করবেন:

কোন টেলিফোনে লাইনে উক্ত সার্কিট’টি যুক্ত অবস্থায় ঐ টেলিফোনে যদি কোন কল আসে তাহলে তার ভোল্টেজ ড্রপ হয়ে ১৫ ভোল্টের নিচে আসবে এবং ১ম ট্রানজিস্টার’টি টার্ন অফ হয়ে যাবে এবং ২য় ট্রানজিস্টার’টি এক্টিভ হয়ে ট্যাংক কয়েলে ১০০ মেগা হার্জের অসিলেটেড কম্পাংক তৈরী করবে তাতে নিকটে থাকা যেকোন FM রেডিওতে উক্ত কনভারসেশন শোনা যাবে। স্পেসিফিক ফ্রিকুয়েন্সিতে সিগন্যাল পেতে আপনি ভ্যারিয়েবল ক্যাপাসিটরটি (ট্রিমার) হালকা ঘুরিয়ে সমন্বয় করে নিতে পারেন।
মোবাইল সিগন্যাল এ্যান্টেনা

নিয়নবাতির কোন একটা পোস্টে আমি বলেছিলাম যে মাইক্রো-এন্টেনা তৈরীর কথা; যাতে ঘরে বসেই মোবাইল নেটওয়ার্ক না পাওয়ার যন্ত্রনা হতে মুক্তি মিলে, সত্যি বলতে আমি তাতে ব্যর্থ হয়েছি (ব্যর্থতার গল্প শোনাতে গেলে তিনবার গুলিস্তান স্টেডিয়াম ইলেক্ট্রনিকস মার্কেট বেড়িয়ে আসা যাবে, তাই সেসব কথা নাইবা শুনলেন)। আসুন তার কিছু ব্যাসিক নলেজ নিয়ে নিই…..

মোবাইল নেটওয়ার্ক হলো এক প্রকার ফ্রিকুয়েন্সি ট্রান্সমিশন যেমন বাংলাদেশে 3G এর জন্য 2100 MHz ব্যান্ডের ফ্রিকুয়েন্সি নির্দিষ্ট করা আছে আর 2G এর জন্য 900,1800MHz ফ্রিকুয়েন্সি।

মূলত মোবাইল নেটওয়ার্ক বুস্টার কাজ করে বাইরের থেকে সিগন্যাল এন্টেনার মাধ্যমে গ্রহন করে সেটাকে এমপ্লিফিকেশনের মাধ্যমে ঘরের লো-নেটওয়ার্ক এরিয়াতে ইনডোর এন্টেনার দ্বারা স্প্রেড করা বা ছড়িয়ে দেওয়া। এখন গুগল আর ইউটিউবে পাওয়া টিউটোরিয়ালে যেই LM386 আইসি ব্যবহার করা দেখানো হয়েছে সেখানে আদতেই কি মোবাইল সিগন্যাল( ফ্রিকুয়েন্সি) এমপ্লিফাই করতে পারে কিনা সন্দেহ,কেননা LM386 (Audio Amplifier Integrated Circuit) সর্বোচ্চ 100khz পর্যন্ত এমপ্লিফাই করতে পারে যেখানে 2G/3G সিগন্যালের ফ্রিকোয়েন্সি 900,1800 MHz এবং 2100MHz।

মোবাইল প্রস্তুতকারক প্রতিষ্ঠান মোবাইল তৈরীর সময় যেই ইন্টারনাল এন্টেনা মোবাইলের সাথে যুক্ত করে দেন সেটিই মোবাইলের জন্য এনাফ এবং আপনার ঘরের ভেতর সিগন্যাল না থাকলে কোনভাবেই আপনার মোবাইল আপনা আপনি সিগন্যাল তৈরী করে নিতে পারে না (বুস্টার/আউটডোর এন্টেনা ছাড়া) সুতরাং টেকনিক্যালি দেখতে গেলে বিষয়টি আসলেই অসম্ভব।

তবুও “কিন্তু” শব্দটার উৎস বিবেচনায় আমরা এমন একটি মাইক্রো এন্টেনা তৈরী করতেই পারি যাতে মোবাইল সিগন্যাল রিসিভ করার সময় ইন্টারনাল এন্টেনা একটু হলেও সহায়ক কোন মাধ্যম পায় (এনড্রোয়েড মোবাইলের ব্যাক পার্ট খুললেই আপনি ওয়াইফাই এবং মোবাইল নেটওয়ার্কের জন্য আলাদা আলাদা দুটি কালো টেপে ঢাকা ইন্টারনাল এন্টেনা দেখতে পাবেন)।
আসুন মাইক্রো এন্টেনা তৈরী করি:



কপার ওয়্যার (ইনসুলেটেড নয়) দিয়ে উপরের পরিমাপ মতে এমন একটি এন্টেনা তৈরী করুন; আকারে ছোট বড় করতেই পারেন তবে পরিমাপ যেন সমানুপাতিক হয়।

এবার এন্টেনা’টি মোবাইলের ব্যাক পার্টের ভেতরে/বাইরে যুক্ত করুন (যদি চিকন তার দিয়ে তৈরী করেন তবে অনায়েসেই সেটা স্কচটেপ দিয়ে যুক্ত করতে পারবেন)।

আমার তৈরী করা এমন নেটওয়ার্ক এন্টেনা:



আসলেই কি এটা কাজ করে?

হ্যা, এটাতে কাজ হয় তবে এটাও ঠিক যে এটা আহামরি ইফেক্টিভ কিছু না এবং এর ইফিসিয়েন্সি খুবই নগণ্য।

মূলত আপনার চারিপাশের ওয়েদার-ইনভারোমেন্ট হতে সিগন্যাল গ্রহন করতে ইর্ন্টারনাল এন্টেনা’কে সহায়তা করাই এমন এন্টেনার আসল কাজ।

মূলত যখন একটি AC কারেন্ট T আকারে কোন পরিবাহকের মধ্য দিয়ে প্রবাহিত হয় তখন T এর ওপরের মাথাতে যেমন দুটি প্রান্ত হতে ফ্রিকুয়েন্সির অর্ধাবৃত্তাকার সিগন্যাল তৈরী হয় ঠিক তেমনি এখানে কপার ওয়্যার দিয়ে একটি এন্টেনা তৈরী করা হলো মাত্র।

উক্ত এন্টেনা’টি মোবাইলের সাথে যুক্ত অবস্থাতে থাকলেই যে হাই-নেটওয়ার্ক পাবেন এমনটা নয় তবে এন্টেনা সংযুক্ত অবস্থাতে মোবাইল’টি কিয়ৎ নাড়াচাড়া করলে সিগন্যাল ডেভোলপ খেয়াল করতে পারবেন; মনে রাখবেন মোবাইলে সংযুক্ত অবস্থাতে Naked Antenna কখনও খালি হাতে স্পর্শ করবেন না তাহলে ভূমি হতে বা আপনার শরীরে থাকা ইলেকট্রন সুপরিবাহকে প্রবাহিত হয়ে সিগন্যালের ব্যাতিচার করতে পারে,সেই জন্য আরবক হিসেবে পাতলা সাদা স্কচটেপ ব্যবহার করতে পারেন।

এছাড়াও এটি ওয়াইফাই সিগন্যালের ক্ষেত্রেও একইরূপ ডেভেলপার হিসেবে কাজ করতে পারে।

মোবাইল সিগন্যাল স্ট্রেন্থ ডিটারমিনেশন করতে আপনি Signal Strenth এপ্সটি ব্যবহার করতে পারেন।
নব্য ফ্রিল্যান্সারদের জন্য সুখবর!

অনলাইনে ইনকাম করার সবচেয়ে প্রচলিত একটা উপায় হলো ফ্রিল্যান্সিং; এটা তো আমরা সবাই জানি। তবুও আমরা কেন ফ্রিল্যান্সিং করতে পারি না?
এটার পিছনে যোগ্যতা এবং মেধা-মনন-মননশীলতা ছাড়াও আরও একটি বড় কারন হলো ভাষা!আমরা অনেকেই ইংরেজি বলার সময় নিজের ভেতর সংকোচবোধ করি যেন গ্রামারে যেন ভুল না হয় কিংবা ঠিকমতো ন্যাটিভ টান হয় তো?!

আবার অন্যদিকে ফ্রিল্যান্সিং জগতে প্রবেশ করেই রাতারাতি বিড করে উইন হয়ে কোটিপতি হওয়া সম্ভব নয় তাই অনেকেই ধৈর্য্যে যুদ্ধে ফ্রিল্যান্সিং’কে টাটা বাই বাই জানান।
আমাদের মতোন ফ্রিল্যান্সিং করতে উৎসাহী নব্য তরুণদের জন্য এমনই একটা ব্লগসাইট হলো YouthLance যেখানে ঠিক Freelancer এর মতোই কাজ পেতে পারেন; অবশ্যই এটা তো ফ্রিল্যান্সারের মতোন ওয়েবসাইট নয় তবে আপাত নিজেকে গড়ে তোলা আর Learn এর পাশাপাশি Earn করার জন্য এটা হয়তো সহায়ক ভূমিকা পালন করবে।

আমি নিয়নবাতি কোন একটি পর্বে কথা দিয়েছিলাম পর্ণাসক্তি বন্ধে আমি কিছু একটা করবো; আসলে Porn প্রতিরোধে নিজের নৈতিকতায় মুখ্য তবুও একটি ছেলের মোবাইলে যখন ইন্টারনেট থাকবে এবং একাকী সময় পার করবে তখন সে কোনটি বেছে নিবে PORN নাকি EARN???

একবারেই হয়তো সিড়ির নীচ হতে উপরে উঠা যাবেনা তবে হাত ধরে টানতে থাকলে কতোক্ষন আর নির্বাক থাকা যায়…..তাইতো YouthLance শুধুমাত্র প্রতিদিন রাত ১০ টা হতে ১২ টা পর্যন্ত খোলা রইবে;যাতে একইসাথে তা স্টুডেন্টদের পড়াশোনার জন্য ক্ষতিকর না হয় এবং একাকী রাতের আধারে Porn এর বদলে Earn করতে পারেন।
একইসাথে ফেসবুকে এমনি ফ্রি ফ্রিল্যান্সিং করতে YouthLance গ্রুপে যুক্ত হতে পারেন।
বাংলাদেশের ইন্টারনেটের খুব বড় একটা অযুহাত আছে, একটু কিছু হলেই ছেলেমানুষি বায়নার মতোন ইন্টারনেট অফ করে দেওয়া হয় (হলেও হতে পারে ইউজার বেশী হওয়ায় ইন্টারনেট 4G/3G হতে কমতে কমতে 2G হয়ে যায়) তাই ভবিষ্যতে যেন “অফলাইনেও ফ্রিল্যান্সিং” করতে পারেন তেমনটা চেষ্টা করবো ইনশাল্লাহ।
যদি মনে করেন উপরের নিজের সাইট এবং গ্রুপ প্রচারের জন্যই পোস্ট করেছি তবে ভুল ভাবনা; নিছক ওয়েবসাইট-ফেসবুক হতে রাতারাতি বড়লোক হওয়ার মতোন আইডিয়া আমার নেই; আমি কিবোর্ড যখন ধরি তখন নিজের নয় বরং নিজেদের ভালোর কথায় ভাবি; তথাপি আপনারা যদি উপকৃত না হন তবে তা রিমুভ করে দেওয়া হবে।
যাই হউক ভালো থাকুন; ভালো রাখুন নিজের প্রিয়জনকে।টেকনোলোজির সাথেই থাকুন,ব্রেইনটাকে ট্যালেন্টেড করুন।
ফেসবুকে বন্ধুত্বরে নিমন্ত্রণ রইলো→নিশান আহম্মেদ নিয়ন
আল্লাহ হাফেজ

No comments:

Post a Comment

Featured Post

[Brute force attack] wifi hacking without root[termux] by sojib

আসসালামুলাইকুম.. আশা করি সবাই ভালো আছেন.. বেশ কিছুদিন পর আবারো হাজির হলাম ছোট্ট একটি হ্যাকিং টুল নিয়ে.. আশা সবার ভালো লাগবে..মনেযোগ দিয়ে প...